জয় শ্রীরাম না বলায়, তৃণমূল কর্মীকে খুনের চেষ্টা, অভিযোগ অস্বীকার বিজেপির

শ‍্যাম বিশ্বাস (উত্তর ২৪ পরগনা): বসিরহাট মহাকুমার হাড়োয়া থানার খাসবালান্ডা গ্রাম পঞ্চায়েতের শামলা মহিষ্টিকারি গ্রামের ঘটনা।

তৃণমূল সূত্রের খবর ৩৮ বছরের শেখ আক্তার, মেছো ঘেরিতে কাজ করে ফিরছিলেন গতকাল মঙ্গলবার রাত্রিবেলা নিজের ঘরে, মহিষ্টিকারি গ্রামে আসতেই মদ্যপ অবস্থায় তারক হাজরা, মনোজ মাইতি, সহ প্রায় ৯ জনের একটি দল হঠাৎই শেখ আক্তার কে লক্ষ্য করে বলতে থাকে জয় শ্রীরাম বলতে থাকে, তারপর আক্তারকে জয়শ্রী রাম বলতে বলে, আক্তার বলতে অস্বীকার করলে তাকে মাটিতে ফেলে ঐ নয় জন মিলে বেধড়ক মারধর করে, তারপর তাকে লোহার রড, এবং বন্দুক, বাশ, ভোজালি সহ বিভিন্ন রকম আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ে হামলা করে তার উপর। স্থানীয় লোকজন এসে গেলে তাকে ফেলে রেখে পালিয়ে যায় অভিযুক্তরা।

আক্তারকে উদ্ধার করে হাড়োয়া গ্রামীণ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় চিকিৎসার জন্য, সেখানে অবস্থার অবনতি হলে তাকে কলকাতার আরজিকর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করে, চিকিৎসকরা জানান শেখ আক্তার এর অবস্থা সঙ্কটজনক।

এই ঘটনায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে আক্রান্তের পরিবার, অভিযুক্তরা হলেন তারক হাজরা, মনোজ মাইতি, তাপস পাল, বুল মাইতি, পরিতোষ মাইতি, সুশান্ত হাজরা, দিবাকর মন্ডল, বুদ্ধেশ্বর মন্ডল, কৃষ্ণ দোলুই, এই ৯ জনের বিরুদ্ধে হাড়োয়া থানায় লিখিত অভিযোগ করে। সেই অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে, পাশাপাশি পুলিশ খতিয়ে দেখছে শুধুই কি রাজনৈতিক কারণ নাকি অন্য কোনো কারণ রয়েছে সেটাও খতিয়ে দেখছে হাড়োয়া থানার পুলিশ।

সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করে বিজেপি বলেন, এ ধরনের রাজনীতি আমরা করিনা, তাছাড়া আমাদের একটি রেলি ছিল প্রার্থীকে নিয়ে সেখানেই আমরা ব্যস্ত ছিলাম, আমাদের কোনো কর্মীই সেখানে যায়নি। সব মিলিয়ে অভিযোগ পাল্টা অভিযোগের ভিত্তিতে শামলা মহিষ্টিকারি গ্রামে যথেষ্ট উত্তেজনা তৈরি হয়েছে।

ঘটনাস্থলে হাড়োয়া থানার পুলিশ মোতায়েন রয়েছে পাশাপাশি একটি পুলিশ প্রিকেট বসানো হয়েছে, ইতিমধ্যেই বিজেপির একজন কর্মীকে আটক করেছে হাড়োয়া থানার পুলিশ।

হাড়োয়া মন্ডল বিজেপি সভাপতি পার্থ চ্যাটার্জি বলেন, বিজেপি এই ধরণের রাজনীতি করে না, আজকে আমাদের একটি র‍্যালি ছিল, সেখানে তৃণমূলের গোষ্ঠীরা গন্ডগোল বাঁধানোর চেষ্টা করেছে এর সঙ্গে বিজেপি কোন ভাবে জড়িত না এটা একটা তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব তাদের পুরনো বিবাদ থেকেই এই গন্ডগোল হয়েছে।

হাড়োয়া বিধানসভার তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থী হাজী নুরুল ইসলাম তৃণমূল ব্লক কংগ্রেসের সভাপতি শফিক আহমেদ যুবনেতা খালেক মোল্লা নেতৃত্বে হাড়োয়া থানার সামনে অভিযুক্তদের গ্রেপ্তারের দাবিতে বিক্ষোভ দেখান শান্তিপূর্ণভাবে।

ক্লিক করে পড়ুন ‘সাতসকাল’ ই-খবরের কাগজ

The post satsakal 12-05-2021 appeared first on satsakal.com.