৫ মে মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথগ্রহণ করবেন মমতা

সোমনাথ আদক (কলকাতা): একুশের বিধানসভা নির্বাচনে সবুজ ঝড়ে কার্যত ধরাশায়ী গেরুয়া শিবির। পাশাপাশি স্বাধীনতা পরবর্তী সময়ে এই প্রথম বাম-কংগ্রেস শূন্য বিধানসভা। অন্যদিকে একক সংখ্যা গরিষ্ঠতা নিয়ে তৃতীয়বার সরকার গঠন করতে চলেছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বাধীন তৃণমূল কংগ্রেস। রাজ্যে ২১৩টি আসনে জিতে জিতে ইতিহাস তৈরি করলেও নন্দীগ্রাম আসনে শুভেম্দু এধিকারীর কাছে পরাজিত হয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী দায়িত্ব সামলাবেন তিনি। আগামী ৫ মে বুধবার তৃতীয়বারের জন্য মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথগ্রহণ করবেন তিনি। ৬ মে বৃহস্পতিবার বাকি জয়ী প্রার্থীরা শপথগ্রহণ করবেন বলে সোমবার জানিয়েছেন তৃণমূলের মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায়।

সোমবার সন্ধ্যায় রাজ্যপালের সঙ্গে দেখা করন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। উল্লেখ্য, রবিবার নির্বাচনে বিপুল জয়ের পর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছিলেন, এই মুহূর্তে তাঁর দলের প্রধান কাজ হল কোভিডের বিরুদ্ধে লড়াই করা। এই আবহে দ্রুত মন্ত্রিসভা গঠন করে কাজ শুরু করতে চাইছেন মমতা।

এই আবহে আজ সন্ধ্যায় রাজভবনে তৃণমূল নেত্রীকে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়। সেখানেই শপথ গ্রহণ-সহ একাধিক বিষয়ে আলোচনা হয়। এদিনের বৈঠকের পর তৃণমূলের মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেন, ‘৫ তারিখ বুধবার তৃতীয়বারের জন্য মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে শপথ নেবেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ৬ তারিখ জয়ী বিধায়করা শপথ নেবেন। এবারও বিধানসভার অধ্যক্ষ হচ্ছেন বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়। তৃতীয়বারের জন্য স্পিকার হচ্ছেন বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়।

যদিও নন্দীগ্রাম আসনের ফলাফল নিয়ে আদলতে যাওয়ার কথা জানিয়েছেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সোমবার এই বিষয়ে বিস্ফোরক মন্তব্য করেন তিনি। তিনি বলেন, এই ফলাফলের পেছনে কারচুপি করা হয়েছে। এমনকী রিটার্নিং অফিসারের জীবন–মরণ সমস্যা রয়েছে বলেও তিনি উল্লেখ করেন। তাঁকে প্রাণ সংশয়ের হুমকি দেওয়া হয়েছে। যা নিয়ে সরগরম হয়ে উঠেছে রাজ্য রাজ্যনীতি।

সোমবার তৃণমূল কংগ্রেসের জয়ী প্রার্থীদের নিয়ে বৈঠকে বসেছেন দলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেখানে বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়ছে বলে সূত্রের খবর। কিন্তু বৈঠকের আগে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়েছিলেন দলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেখানেই তিনি বলেন, ‘‌রাত ১১টা নাগাদ আমার কাছে একটি এসএমএস আসে। কারও কাছ থেকে আমি সেটা পেয়েছি। সেখানে নন্দীগ্রামের রিটার্নিং অফিসার লিখেছেন, যদি তিনি পুনর্গণনার অনুমতি দেন তাহলে তাঁর প্রাণ সংশয় হতে পারে। এই হুমকি রয়েছে। চার ঘন্টা ধরে সার্ভার ডাউন করে রাখা হল। রাজ্যপাল আমাকে অভিনন্দন জানিয়েছিলেন। হঠাৎ পুরো বিষয়টা পাল্টে গেল। নন্দীগ্রামের দু’‌জন পর্যবেক্ষক পক্ষপাতদুষ্ট। তাঁরা আমাকে হারাতে চেয়েছিল। ’‌

মুখ্যমন্ত্রীর এই বিস্ফোরক তথ্যে আবারও সরগরম রাজ্য তথা নন্দীগ্রাম। সেখানে মানুষ ইতিমধ্যেই ক্ষেপে উঠেছে। আরও হিংসা বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। রবিবারই শুভেন্দু অধিকারীর গাড়ি জনরোষের মুখে পড়েছিল।

নন্দীগ্রামের ফলাফল নিয়ে মমতা সুপ্রিম কোর্টে যাবেন বলেও সোমবারও জানিয়েছেন। পাশাপাশি ইভিএম ফরেনসিক পরীক্ষা করাবেন বলেও দাবি তুলেছেন মমতা।

এদিনের সাংবাদিক বৈঠকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সমস্ত সাংবাদিককে করোনা যোদ্ধা হিসাবে ঘোষণা করে বলেন, ‘‌আমি রাজ্যবাসীর কাছে আহ্বান জানাচ্ছি শান্তি বজায় রাখুন। কোনও হিংসাকে প্ররোচনা দেবেন না। আমরা জানি বিজেপি এবং কেন্দ্রীয় বাহিনী অনেক অত্যাচার করেছে আমাদের উপর। এখন আমরা করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করছি।“‌

ক্লিক করে পড়ুন ‘সাতসকাল’ ই-খবরের কাগজ

The post satsakal 08-05-2021 appeared first on satsakal.com.