অ্যারোজকে হারিয়ে লীগের শীর্ষে মোহনবাগান

মোহনবাগান ১(সাইরাস) | অ্যারোজ ০

 

আই লীগে জয়ের ধারা অব্যহত মোহনবাগানের। বৃহস্পতিবার কল্যাণীতে ইন্ডিয়ান অ্যারোজকে ১-০ গোলে হারিয়ে লিগ শীর্ষে চলে গেল সবুজ মেরুন।

এদিনের ম্যাচে দলে কোনও পরিবর্তনই আনেননি বাগান কোচ কিবু ভিকুনা। সামনে সেই পাপা বাবাকার ও ভিপি সুহেরকে সামনে রেখেই দল সাজিয়েছিলেন তিনি। অন্যদিকে, অ্যারোজ খেলে ৪-৩-২-১ ছকে।

এস ভেঙ্কটেশের দল যে অফুরান প্রাণ শক্তি দিয়ে মোহনবাগানকে রুখে দেওয়ার চেষ্টা করবে, তা আগে থেকেই অনুমেয় ছিল। হলও তাই। ক্রমাগত দৌড়ে গেলেন মানবীর, আয়ুশরা। অন্যদিকে, অবনমনের চিন্তাও না থাকায় অনেক ফুরফুরে মেজাজেই খেললেন তাঁরা। অন্যদিকে, মোহনবাগানও শুরু থেকে আক্রমণাত্মক  ফুটবলই খেলল।  ম্যাচের ১৮ মিনিটে এগিয়ে যায় সবুজ মেরুন। বক্সের বাইরে থেকে লং রেঞ্জারে দর্শনীয় গোল করেন ডিফেন্ডার ড্যানিয়েল সাইরাস। এছাড়া আরও ১২টি শট প্রথমার্ধে নেয় বাগান। অন্যদিকে, অ্যারোজ বেশ কিছু আক্রমণ শানালেও অভিজ্ঞতার অভাবে প্রথমার্ধে কোনও গোলের সুযোগই তৈরি করতে পারেনি।

প্রথমার্ধের মতোই দ্বিতীয়ার্ধেও আধিপত্য বজায় রাখল মোহনবাগান। একদিকে যখন শুধু দৌড়েই গেলেন অ্যারোজ, তখন উল্টোদিকে একফোঁটাও তাড়াহুড়ো করল বাগান। নিজেদের স্বাভাবিক খেলাটাই খেলল কিবু ভিকুনার দল। ৪৭ মিনিটে দলের হয়ে দ্বিতীয় গোলটি করেই ফেলেছিলেন সেই সাইরাস। কিন্তু তাঁর লব শূন্যে শরীর ছুঁড়ে বাঁচান অ্যারোজের কিপার লালবিয়াখুলা। ৫৪ মিনিটে আবার অ্যারোজ জালে বল জড়ান পাপা বাবাকার। কিন্তু তা ফাউলের জন্য বাতিল হয়ে যায়। শেষের দিকে ব্রিটোর ক্রস থেকে পাপার দুরন্ত হেডার অল্পের জন্য লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়। শেষদিকে অ্যারোজ একটু মরীয়া হয়ে উঠলেও লাভের লাভ কিছু হয়নি। নিজেদের অভিজ্ঞতা দিয়ে অ্যারোজ দলের যাবতীয় আক্রমণ রুখে দিল বাগান ফুটবলাররা। গোল করার পাশাপাশি দুরন্ত ডিফেন্স আগলে ম্যাচের সেরা হলেন সাইরাস।

এই ম্যাচ জিতে ৬ ম্যাচে ১৩ পয়েন্ট নিয়ে লীগের শীর্ষে চলে গেল মেরিনাসরা। তাদের পরের ম্যাচে ১৪ তারিখ লুধীয়ানাতে পাঞ্জাব এফসির বিরূদ্ধে।

ক্লিক করে পড়ুন ‘সাতসকাল’ ই-খবরের কাগজ

The post satsakal 06-05-2021 appeared first on satsakal.com.